খুদে কবি নুরেজান্নাত এর কবিতা - Simanto Times
Latest:

Today: 13 Apr 2021 - 04:20:51 am

খুদে কবি নুরেজান্নাত এর কবিতা

Published on Wednesday, December 2, 2020 at 4:11 pm 139 Views

প্রর্থনা কবুল করো
নুরেজান্নাত

পড়ি নামাজ কালাম
করি মুনাজাত
তোমার কাছে আমার চাওয়া
ফিরিয়ে দিও না হাত
নামাজের ঘর সুন্দর হোক
সাথে জায়নামাজটা
আমি মরলে যেনো আলোকিত হয়
আমার কবরটা
যেখানে কোন আলো নেই
সেই কোন দরজা জানালা
সেখানে থাকবো আমি একাই
থাকবে না কোন বাড়িওয়ালা
দুনিয়ার ভোগবিলাশ থেকে
ফিরিয়ে আনো আমায়
মৃত্যুর কথা স্মরন থাকে
কখনো ভুলি না যে তোমায়
সবার সাথে ভালো ব্যবহার
করি যেন আমি
কোন ভুল ত্রুটি হয়ে গেলে
ক্ষমা করে দিও তুমি
বঙ্গবন্ধু
নুরেজান্নাত

হে মুজিব তুমি এসেছিলে ১৯২০ সালে
তোমাকে মনে রেখেছে সবাই এ কালে

কত অত্যাচার নিপীড়ন সহ্য করেছো
এ দেশের স্বাধীনতা তুমিই তো এনেছো
জেলে বসে স্বাধীনতার কথা ভেবেছো
অনেকের কাছে কত যে ধোকা খেয়েছো

অসহায়ের বন্ধু, গরীবের  সাথী
তোমাকে জানাই হাজার হাজার প্রীতি
তুমিই তো মানবের মাথার সিথী
তোমাকে অকালে জীবন করতে হয়েছে ইতি ।

তোমার কথা ভেবে ভেবে  রাত করেছি পার
তাই তো খাতায় লিখে দিলাম কবিতাটি তোমার ।
তুমি আমার বন্ধু,সবার বন্ধু
তুমিই তো বঙ্গবন্ধু
নীরবতা
নুরেজান্নাত

রাত থম থম স্বব্ধ নীরব
চারদিকে অন্ধকার
মাঝ রাতে উঠে দেখি
কত রকম জোনাকি পোকার দল ।

কেউ হাসছে , কেউ গাইছে
কত রকমের গান
তাদের কথা শুনতে শুনতে
ভরে গেলো মোর প্রাণ

বাঁশবাগানে, আমবাগানে
ঝোপের ধারে
আরো দেখি একটু এগিয়ে
দেখি নড়ীর পাড়ে

কী সুন্দর হাসি
কী সুন্দর গান
তার পরেই দেখি
মসজিদে পড়ছে আযান ।

এই তো সকাল বেলা
যখন থাকে নিরবতা
সবাই মনোযোগ হও
পড়াশুনায় যথা তথা

স্বাধীন
নুরেজান্নাত

স্বাধীন মনে হয় পরাধীন, নয় অন্যের অধীন
নিজেকে অন্যের অধিকার রক্ষার দায়িত্ব নিন,তারই মানে স্বাধীন ।

একথা প্রকাশ করেছে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান
১৯৭১ সালে দিয়ে ৭ই মার্চের ভাষন অ

যিনি স্বাধীনতার মহানায়ক, তিনিই বাঙ্গালির পলক
৭ই মার্চের ভাষনে স্বাধীনতার চূড়ান্ত ঘোষনা অনেক

পরাধীনতার শৃঙ্খলা ভাংলো বঙ্গবন্ধুর ডাকে
বাংলার মানুষ যোগ দিরো ঝাঁকে ঝাঁকে ।

প্রতিদিন বড় শহরে চলে মিছিল
লাল রক্তে রাস্তা হয়েছে পিচ্ছিল
ভেবে স্বাধীনতার কথা, শত মরনেও পাইনিকো ব্যথা
যদিও মনে পড়ে বার বার মার্চের গণহত্যার কথা ।

স্বাধীনতা সূর্য ছিনিতে আনতে
কত ও মায়ের সন্তানের হলো মরতে ।

২৬শে মার্চ অপারেশন  সার্চ লাইট করলো জারি
যেখানে সেখানে মরলো  মানুষ পুরুষ কিবা নারী ।
শত মায়ের বুক হলো খালি
পশ্চিমা শাসক গোষ্ঠী হাতে দেয় তালি ।

৩০ লক্ষ শহীদের বিনিময়ে পেলাম স্বাধীনতা
আমরা এখন আর নেই পরাধীনতা
সবাই যেন করিতে পারি স্বাধীনতা ভোগ
জাতীয় উৎসবগুলো সবাই মিলে করবন উপভোগ
কেউ কাউকে যেন দেয় না কোন দুংখ, এই হোক মোদের পন
স্বাধীনতার অর্জনের কথা যেন রাখিও সবাই স্মরন ।

২৬ শে মার্চ
২৬ শে মার্চ পড়লে মনে

অনেকের কথা জাগে
রাজাকার কমান্ডাররা
ভাগে আগে আগে

২৬ শে মার্চ পড়লে মনে
তাদের নিয়ে ভাবি
যুদ্ধ করে এনেছিল যার
এদেশের শান্তি-সুখের চাবি

২৬শে মার্চ পড়লে মনে
তাদের আশায় থাকি
যারা দেশকে করেছিল স্বাধীন
লাল পতাকার বুকে ছবি আঁকি ।

২৬শে মার্চ পড়লে মনে
তাঁদের নিয়ে ভাবি
যারা এদেশকে করেছিল শত্রুমুক্ত
করেছিল স্বাধীনতার দাবি ।

২৬শে মার্চ পড়লে মনে
তাদের মনে রাখি
যারা শত মায়ের বুকে
এঁকেছিল পাখির ছবি

২৬শে মার্চ পড়লে মনে
তাদের নিয়ে হাসি
যারা এদেশের জন্য জীবন রেখেছে বাজি

২৬শে মার্চ পড়লে মনে
তাদের নিয়ে গর্ব করি
যারা পাকিস্তানিদের
গলায় দিয়েছিল দড়ি
নতুন সূর্য
আশায় আছি নতুন সূর্য
উঠবে আবার কবে
শিশিনদের আশার খবর  পেয়ে
মন ভরে যাবে

যে যায় সে তো আর
ফিরে আসে না
তাই বলে মনের খুশি
হারানো যাবে না ।

একজন যাবে কত জন আসবে
ভরে যাবে পৃথিবী
সবাই সে  দিন নতুন সূর্য
আমি থাকব কী ?

আমি  গেলে তাতে কী
আসবে নতুন শিশু
থাকবে না কোন ফাঁকা জায়গা
হাসবে নতুন  শিশু
সূর্যের দিগন্ত লাল আভায়
সবাই হবে হয়রানি ।

আনন্দ উৎফুল কন্ঠে
সবার মনে গান
আনন্দে এদেশ ভরে যাবে
বেড়ে যাবে গৌরব মান

মানুষ মুহাম্মদ

হে আল্লাহর রাসুল তুমি মোদের সবার সেরা
তোমায় পেয়ে ধন্য যে এ ধরা

তোমার মত কেউ তো নয় এত বন্ধু সূলভ

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *